বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই ২০২৪, ০১:২৩ অপরাহ্ন

জাপানের ওপর দিয়ে ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ উ. কোরিয়ার

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
  • সর্বশেষ আপডেট : মঙ্গলবার, ৪ অক্টোবর, ২০২২
  • ১০১ বার পড়া হয়েছে /

জাপানের উত্তরাংশের ওপর দিয়ে ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করেছে উত্তর কোরিয়া। যা প্রায় ৩ হাজার কিলোমিটার পাড়ি দিয়ে হোক্কাইডো দ্বীপের কাছে প্রশান্ত মহাসাগরে পতিত হয়। আজ মঙ্গলবার (৪ অক্টোবর) ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির এক প্রতিবেদন থেকে এসব তথ্য জানা যায়।২০১৭ সালের পর এই প্রথম উত্তর কোরিয়া জাপানের ওপর দিয়ে ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করল। এ ঘটনার পরপরই জাপান তার নাগরিকদের নিরাপদ আশ্রয়ে চলে যেতে বলে এবং দেশটির উত্তরাংশে ট্রেন চলাচল সাময়িকভাবে বন্ধ করে দেওয়া হয়।জাপানের প্রধানমন্ত্রী ফুমিও কিশিদা জাতীয় নিরাপত্তা পরিষদের একটি বৈঠক ডেকেছেন। ঘটনার প্রাথমিক প্রতিক্রিয়ায় তিনি বলেন, উত্তর কোরিয়ার এমন পদক্ষেপের তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি। দেশটির এই উৎক্ষেপণ একধরনের হিংসাত্মক আচরণ। তিনি বলেন, এমন বিপজ্জনক কাজ আর কখনও সহ্য করা হবে না। উত্তর কোরিয়া যদি এমন করতেই থাকে তবে তাদের ভবিষ্যৎ ভালো নয়।জানা যায়, ২০১৭ সালের পর প্রথমবারের মতো জাপানের ওপর দিয়ে উড়ে যাওয়া বা ভূখণ্ড অতিক্রম করা উত্তর কোরিয়ার এই ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্রটি ধ্বংস করার জন্য জাপান কোনো প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা ব্যবহার করেনি।জাপানের প্রধান সরকারি মুখপাত্র হিরোকাজু মাতসুনো এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, পুনরায় ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র উৎক্ষেপণসহ উত্তর কোরিয়ার ধারাবাহিক পদক্ষেপ জাপান, এই অঞ্চল এবং আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের শান্তি ও নিরাপত্তার জন্য হুমকি সৃষ্টি করেছে। একইসঙ্গে উত্তর কোরিয়ার এই কর্মকাণ্ড জাপানসহ সমগ্র আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের জন্য একটি গুরুতর চ্যালেঞ্জ তৈরি করেছে।তিনি বলেন, ক্ষেপণাস্ত্রটি সর্বোচ্চ এক হাজার কিলোমিটার উচ্চতায় ৪ হাজার ৬০০ কিলোমিটার (২ হাজার ৮৫০ মাইল) উড়েছিল।অন্যদিকে দক্ষিণ কোরিয়ার জয়েন্ট চিফস অব স্টাফ (জেসিএস) বলেছে, এটি একটি মধ্যবর্তী-পাল্লার ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র (আইআরবিএম) বলে মনে হচ্ছে এবং এটি উত্তর কোরিয়ার জাগাং প্রদেশ থেকে উৎক্ষেপণ করা হয়।

আরো পড়ুন

এস এন্ড এফ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড © সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

Developer Design Host BD