শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৪:৫৭ অপরাহ্ন

ফের উত্তাল শ্রীলঙ্কা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
  • সর্বশেষ আপডেট : বৃহস্পতিবার, ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২৩
  • ৮৪ বার পড়া হয়েছে / ইপেপার / প্রিন্ট ইপেপার / প্রিন্ট

২০২২ সালের ২০ জুন তৎকালীন প্রেসিডেন্ট গোটাবায়া রাজাপাকসে ও প্রধানমন্ত্রী রনিল বিক্রমাসিংহের পদত্যাগের দাবিতে শ্রীলঙ্কার জনসাধারণ ও কয়েক হাজার শিক্ষার্থী রাজপথে নেমে পড়েছিলেন। সেই বিক্ষোভের চোটে গোটাবায়া রাজাপাকসে দেশ ছেড়ে পারিয়ে যেতে বাধ্য হয়েছিলেন। পড়ে অবশ্য তিনি দেশে ফিরে আসেন। পরবর্তীতে দেশটির পরিচালনার দায়িত্ব নেন রনিল বিক্রমাসিংহে। দীর্ঘ সাত মাস পর ফের বিক্ষোভে উত্তাল হয়ে উঠেছে দেশটি।

এবার আয়কর বৃদ্ধির প্রতিবাদে গতকাল বুধবার (৮ ফেব্রুয়ারি) রাজধানী কলম্বোর রাস্তায় বিক্ষোভে নামেন দেশটির ৪০টি ট্রেড ইউনিয়নের কয়েক হাজার শ্রমিক। এ সময় অন্যায্য আয়কর কমানোর দাবি জানান তারা।

জানা গেছে, এক নজিরবিহীন অর্থনৈতিক সংকটের কারণে ভগ্নদশায় থাকা সরকারি অর্থায়ন পরিস্থিতি সংস্কারের উদ্যোগ নিয়েছে শ্রীলঙ্কার সরকার। সংস্কারের অংশ হিসেবে কর বাড়ানো হয়েছে। অর্থনৈতিক সংস্কার প্রক্রিয়ায় আইনপ্রণেতার সহায়তা চেয়ে গতকাল বুধবার পার্লামেন্টে বক্তব্য দেন প্রেসিডেন্ট রনিল বিক্রমাসিংহে।

বক্তব্যে চলতি বছরের শেষ দিকেই শ্রীলঙ্কার অর্থনীতি ঘুরে দাঁড়াবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন তিনি। ২০২৬ সালের মধ্যে দ্বীপরাষ্ট্রটি দেউলিয়া তকমা কাটিয়ে উঠবে বলেও মন্তব্য করেন তিনি। ভারত, জাপানসহ অন্যান্য ঋণদাতারাও এরই মধ্যে শ্রীলঙ্কাকে সমর্থনের আশ্বাস দিয়েছে বলেও জানান বিক্রমাসিংহে।

এরপরই শুরু হয় বিক্ষোভ। স্থানীয় সময় গতকাল সকালে শ্রীলঙ্কার রাজধানী কলম্বোর রাজপথে জড়ো হতে শুরু করেন ৪০টি ট্রেড ইউনিয়নের কয়েক হাজার শ্রমিক।

দেশটির গণমাধ্যম জানিয়েছে, বিক্ষোভে বিভিন্ন খাতের শ্রমিকরা অংশ নেন। এছাড়া কর নীতির বিরুদ্ধে কলম্বোয় বিক্ষোভে অংশ নিয়েছেন সরকারি কর্মচারীরাও।

বিক্রমাসিংহের নতুন আয়কর নির্ধারণকে অন্যায্য বলে দাবি জানান অনেকে। হাতে প্ল্যাকার্ড ও ব্যানার নিয়ে রাস্তায় দাঁড়িয়ে সরকারের বর্ধিত আয়করের তীব্র প্রতিবাদ জানান শ্রমিকরা।

আরো পড়ুন

এস এন্ড এফ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড © সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

Developer Design Host BD